ঢাকাশনিবার , ১৬ মার্চ ২০২৪
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আপন আলোয় উদ্ভাসিত
  6. আরো
  7. এক্সক্লুসিভ
  8. কবিতা
  9. কৃষি ও প্রকৃতি
  10. খুলনা
  11. খেলাধুলা
  12. গণমাধ্যম
  13. চট্টগ্রাম
  14. চাকুরি
  15. চাঁদপুর জেলার খবর

হাজীগঞ্জে মেলা বন্ধে ব্যবসায়ীদের আল্টিমেটাম

রূপসী বাংলা ২৪.কম
মার্চ ১৬, ২০২৪ ৬:৪৪ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

হাজীগঞ্জ বাজারের বালুর মাঠে (গাজীর খাদা) অনুষ্ঠিত মাসব্যাপী মেলা বন্ধের আল্টিমেটাম দিয়েছেন হাজীগঞ্জ বাজার ব্যবসায়ী সমিতি নেতৃবৃন্দ। বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) সন্ধ্যায় সমিতি কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক প্রতিবাদ সভায় এ আল্টিমেটাম দেন ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ।
সভায় বাজারস্থ বিভিন্ন মার্কেটের পক্ষে বক্তব্য শেষে দুদিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেন অনুষ্ঠানের সভাপতি ও বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব আসফাকুল আলম চৌধুরী। তিনি বলেন, শুক্রবারের মধ্যে মেলার সকল কার্যক্রম বন্ধ না হলে শনিবার মানববন্ধন ও রোববার সড়ক অবরোধ করা হবে।
বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক হায়দার পারভেজ সুজনের সঞ্চালনায় সভায় ব্যবসায়ীরা বলেন, মহামারি করোনার প্রভাবে বাজারে প্রায় ৪ হাজার ব্যবসায়ী মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। এ ক্ষতি পুষিয়ে উঠতে ব্যবসায়ীরা ব্যাংক ও এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে এবং ধার-দেনা করে ব্যবসা পরিচালনা করে আসছেন।
এছাড়া বছরের ১১টি মাস ব্যবসায়ীরা লসে-লাভে ব্যবসা করে থাকে। তারা ঈদকে সামনে রেখে ঋণ ও ধার-দেনা করে দোকানে মালামাল মজুদ করে। কিন্তু মেলার কারণে ব্যবসায়ীরা আবারও ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে। টানা এক মাস মেলা হয়েছে। এখন সময় শেষ, মেলার আনুষ্ঠানিকতা সমাপ্ত করা হবে। অথচ মেলা বন্ধ না করে মেয়াদ বৃদ্ধি কিংবা বস্ত্র প্রদর্শনী বা অন্য নামে মেলা চালিয়ে যাওয়ার পাঁয়তারা চলছে বলে আমরা জানতে পেরেছি।
ব্যবসায়ীরা বলেন, আমরা দোকানের অ্যাডভান্স ও ভাড়া দিয়ে, ভ্যাট, ট্যাক্স, ট্রেড লাইসেন্স, বিভিন্ন লাইসেন্সসহ লাখ লাখ টাকা খরচ করে ব্যবসা করছি। অথচ বহিরাগতরা এসে ব্যবসা করে যাবে, তা হতে পারে না। এখানে ২/১ জন লোক ৩/৪ হাজার ব্যবসায়ীকে জিম্মি করে ব্যবসা করার সুযোগ নেয়। ‘আমাদেরকে (ব্যবসায়ীদের) রাস্তায় নামতে বাধ্য করবেন না’ উল্লেখ করে সরকারের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন ব্যবসায়ীরা। তারা আরও বলেন, আমরা চাই এ মেলা দ্রুত বন্ধ করা হোক এবং ভবিষ্যতে হাজীগঞ্জ বাজারের ৩ কিলোমিটারের মধ্যে আর কোনো মেলা যেনো না হয় এবং কর্তৃপক্ষ যেনো তাদের অনুমতি না দেন।
সভায় বক্তব্য রাখেন রয়েল রওশন মার্কেটের পক্ষে কাজী গোলাম সরোয়ার দিদার, ফুলেল সুপার মার্কেটের পক্ষে মজিবুর রহমান, হকার্স মার্কেটের পক্ষে খোরশেদ আলম, হাজীগঞ্জ প্লাজার মার্কেটের পক্ষে জিয়াউল হক জিয়া, হাজীগঞ্জ টাওয়ার মার্কেটের পক্ষে জিসান আহমেদ, পৌর বিপণী বিতান মার্কেটের পক্ষে আব্দুল হাই, নূর আহমেদ প্লাজা মার্কেটের পক্ষে আশ্রাফ উদ্দিন, আহমেদ প্লাজা মার্কেটের পক্ষে জসিম উদ্দিন, বিজনেস পার্ক মকিমউদ্দিন শপিং সেন্টার মার্কেটের পক্ষে মানিক সরকার প্রমুখ। সভায় বিভিন্ন মার্কেটের অর্ধ-শতাধিক ব্যবসায়ী উপস্থিত ছিলেন।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।

%d bloggers like this: