ঢাকামঙ্গলবার , ১২ মার্চ ২০২৪
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি
  3. আইন-আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আপন আলোয় উদ্ভাসিত
  6. আরো
  7. এক্সক্লুসিভ
  8. কবিতা
  9. কৃষি ও প্রকৃতি
  10. খুলনা
  11. খেলাধুলা
  12. গণমাধ্যম
  13. চট্টগ্রাম
  14. চাকুরি
  15. চাঁদপুর জেলার খবর

প্রেম সংক্রান্ত বিরোধ : বাবুরহাটের ইকবাল মালকে পিটিয়ে হত্যা

রূপসী বাংলা ২৪.কম
মার্চ ১২, ২০২৪ ৫:৫৪ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

চাঁদপুর শহরতলীর বাবুরহাটে আপন ফুফাতো বোনের সাথে প্রেমের সম্পর্কের বিরোধে ইকবাল মাল (২৭) নামে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যা করার চাঞ্চল্যকর ঘটনা ঘটেছে। ওই যুবককে খবর দিয়ে নিয়ে রাতের আঁধারে মেরে গাছের সাথে ঝুলিয়ে রেখে ঘটনাকে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেয়ার অপচেষ্টা করা হয়েছে। অবশেষে স্থানীয়রা ঝুলন্ত অবস্থায় যুবককে উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর তার অবস্থার অবনতি দেখে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইকবাল মালের মৃত্যু হলে ঘটনা ধামাচাপা দিতে উঠে পড়ে লাগে দালাল চক্র।
ঘটনাটি ঘটেছে চাঁদপুর সদর উপজেলার ২নং আশিকাটি ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ড রালদিয়া গ্রামের মমিন পাটোয়ারীর বাড়িতে। গত ৮ মার্চ শুক্রবার রাতে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতাল থেকে ময়নাতদন্ত শেষে ইকবাল মালের মরদেহ বাড়িতে নিয়ে আসেন স্বজনরা।
এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় জড়িত মমিন পাটোয়ারীর মেয়ে ফুফাতো বোন সামসি, পাখি, শিল্পী বেগম ও তার ছেলে ইয়ামিন এবং ফুফু মাফিয়া বেগমসহ অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামী করে চাঁদপুর সদর মডেল থানায় অভিযোগ দায়ের করেন নিহত ইকবালের চাচা দুলাল মাল। নিহত ইকবাল মাল চাঁদপুর পৌরসভার ১৫ নং ওয়ার্ড বাবুরহাট বাজার এলাকার মৃত বজু মালের ছেলে।
পরিবারের অভিযোগ, লালদিয়া গ্রামের মমিন পাটোয়ারীর মেয়ে সামসি তার মামাতো ভাই ইকবালের সাথে প্রেমের সম্পর্কে জড়ায়। শামসির প্রবাসী স্বামীকে ছেড়ে মামাতো ভাই ইকবালকে বিয়ে করার প্রস্তাব দেয়। বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ইকবালকে খবর দিয়ে নিয়ে শামসির বড় বোন শিল্পী বেগমের ছেলে ইয়ামিন সহ অজ্ঞাত কয়েকজন যুবক বাগানের ভিতর ঢুকিয়ে বেদম মারধর করে বাড়ির পাশের গাছের সাথে ঝুলিয়ে রেখে পালিয়ে যায়। প্রতিবেশীরা ঝুলন্ত অবস্থায় ইকবাল মালকে দেখতে পেয়ে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। সুপরিকল্পিতভাবে ইকবাল মালকে হত্যা করে আত্মহত্যা নাটক সাজানোর চেষ্টা করে তারা। এই ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার জন্যে একটি দালাল চক্র অপরাধীদের বাঁচানোর চেষ্টা করছে।
ফুফুর বাড়িতে ডেকে নিয়ে ইকবাল মালকে এভাবে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় এলাকায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। এই ঘটনায় অপরাধীদের দ্রুত গ্রেপ্তারের দাবি জানান এলাকাবাসী।
নিহত ইকবাল মালের লাশ বাড়িতে আনার পর পরিবারের মাঝে শোকের ছায়া নেমে আসে। তারা এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত গ্রেপ্তার এবং দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন। ঘটনার পর থেকে হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত অপরাধীরা বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে রয়েছে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।

%d bloggers like this: